রবিবার , ২৪শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ইং , ১২ই ফাল্গুন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ




মেয়েদের গতিবিধি  অনুসরণের অ্যাপের জন্য সমালোচিত অ্যাপল, গুগল

প্রথম সময়: ডেস্ক নিউজ | সংবাদ টি প্রকাশিত হয়েছে : ১০. ফেব্রুয়ারি. ২০১৯ | রবিবার

এই প্রতিবেদন শেয়ার করুন

সোহাগ সামী:

 

মেয়েদের গতিবিধি অনুসরণ ও নিয়ন্ত্রণ করতে পুরুষদের জন্য অ্যাপ বিপণন করে সমালোচিত হয়েছে বৃহৎ প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান অ্যাপল ও গুগল।

সৌদি আরবের ছেলেরা সেখানকার মেয়েদের ওপর এই অ্যাপ ব্যবহার করে নজরদারি করে বলে জানায় বার্তা সংস্থা ইন্দো এশিয়ান নিউজ সার্ভিস।

শুক্রবার মার্কিন সংবাদমাধ্যম ইন্সাইদার জানায়, ‘আবশার’ নামের অ্যাপটি দিয়ে পুরুষরা নারীদেরকে ভ্রমণের অনুমতি দিতে পারেন। নজরে রাখা নারী পাসপোর্ট ব্যবহার করলে ওই ব্যক্তিকে এসএমএসের মাধ্যমে তা জানানো হয়।

গুগলের গুগল প্লে এবং অ্যাপলের অ্যাপ স্টোরে ‘আবশার’ অ্যাপটি পাওয়া যায়।

যুক্তরাষ্ট্রের এই প্রযুক্তি নির্মাতাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে, তারা নারীদেরকে দমন-নিপীড়নের পন্থা আরও সহজ করে দিচ্ছে এবং ‘লিঙ্গ বৈষম্যকে’ প্রকট করে তুলছে।

আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল, হিউম্যান রাইটস ওয়াচ ও নারী অধিকার নিয়ে কাজ করে এমন একটি সংস্থা অ্যাপল ও গুগলকে অ্যাপটির বিপণন পুনরায় বিবেচনার আহ্বান জানিয়েছে।

প্রতিষ্ঠান দু’টি ইনসাইডারকে এ বিষয়ে কোনও মন্তব্য দেয়নি।

সৌদি আইন অনুযায়ী নারীদের অবশ্যই একজন বৈধ পুরুষ ‘অভিভাবক’ থাকতে হবে যিনি তার ভ্রমণের ওপর বিধিনিষেধ আরোপ করতে পারবেন।

আবশার একটি সরকারি সেবা যা দিয়ে গাড়ি পার্কিংয়ের জন্য জরিমানা দেয়াসহ বিভিন্ন কাজ করা যায়। কিন্তু মানবাধিকার কর্মীরা এটির ভ্রমণ সম্পর্কিত ফিচারের তীব্র সমালোচনা করছেন। এটির কারনে মেয়েদের সৌদি আরব ত্যাগ করাটা কঠিন হয়ে পড়ে।

‘হুমকি ও হয়রানিতে ব্যবহার করা যায় এমন অ্যাপের বিরুদ্ধে অ্যাপল ও গুগলের নীতিমালা রয়েছে,’ জানায় হিউম্যান রাইটস ওয়াচ।

আবশারের মতো দিয়ে অ্যাপ মানবাধিকার লঙ্ঘনসহ নারীদের প্রতি বিভিন্ন বৈষম্যমূলক আচরণ করা যায় বলে মন্তব্য করে সংস্থাটি।

অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল অ্যাপল ও গুগলকে অ্যাপটি পরিবর্তনের আহ্বান জানিয়েছে যেন এটি দিয়ে নারীদের কোনও ক্ষতি করা না যায়

 

 

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ২৪ বার







Archives

Translate »