ডিগ্রিধারী চান্দু মামার গল্প

প্রথম সময়: ডেস্ক নিউজ | সংবাদ টি প্রকাশিত হয়েছে : ১৪. সেপ্টেম্বর. ২০১৯ | শনিবার

এই প্রতিবেদন শেয়ার করুন

বিনোদন ডেস্ক: ‘অত্র এলাকার কৃতি সন্তান, ডিগ্রিধারী চান্দু মামা। কবি, সাহিত্যিক, নাট্যকার, পরিচালক, সাংবাদিক, গীতিকার, সুরকার, শিল্পী, অভিনয়সহ সকল বিষয়ে পিএইচডি ডিগ্রি লাভ করায় শুভেচ্ছা ও সংবর্ধনা।’— অভিনেতা প্রাণ রায়ের ছবি সম্বলিত একটি পোস্টারে এমন শুভেচ্ছা বাণী দেখা যায়।

কদিন ধরেই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে এ পোস্টার ভেসে বেড়াচ্ছে। পরিচালক প্রথম সময় পত্রিকার প্রধানন  সম্পাদক ইরানী বিশ্বাসের ফেসবুক ওয়ালেও পোস্টারটি দেখা যায়। এ বিষয়ে কথা হয় ইরানী বিশ্বাসের সঙ্গে।  জানান, এই পোস্টারটি ‘ডিগ্রিধারী চান্দু মামা’ টেলিফিল্মের অংশ।

টেলিফিল্মটি রচনা ও পরিচালনা করেছেন ইরানী বিশ্বাস। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘মানুষের মনে এখন উচ্চাকাঙ্ক্ষা বেড়ে গেছে। আর এজন্য মানুষ অন্যায় করতে এতটুকুও পিছপা হয় না। টেলিফিল্মটির প্রতিটি পরতে পরতে মেসেজ রয়েছে। যা কমেডির মধ্য দিয়ে তুলে ধরেছি।’

গল্প প্রসঙ্গে এ পরিচালক জানান, বেসরকারি এক প্রতিষ্ঠানে চান্দু নামে এক যুবক পিয়নের চাকরি করে। সে সব সময় নিজেকে সবার থেকে বড় ভাবতে পছন্দ করে। নিজের প্রশংসা শুনতে এবং তোষামোদ করতে পছন্দ করে। এক পর্যায়ে চান্দুকে তার বস বলে, এই দেখো আমি ডক্টরেট শেষ করেছি। এরপর হঠাৎ করেই চান্দু গ্রামে যায়। সেখানে গিয়ে সবাইকে বলে, আমি বিদেশ থেকে পিএইচডি ডিগ্রি কিনেছি। তারপর বিষয়টি মানুষকে জানানোর জন্য নানা কর্মকাণ্ড শুরু করে চান্দু ও তার স্ত্রী।

টেলিফিল্মটির নাম ভূমিকায় অভিনয় করেছেন প্রাণ রায়। অন্যান্য চরিত্র রূপায়ন করেছেন— শানেরাই দেবী শানু, শামীম হাসান সরকার, ইমরান খান ইমু, সুব্রত, রিমু রেজা খন্দকারসহ অনেকে। সম্প্রতি পুবাইলসহ বিভিন্ন স্থানে এর দৃশ্যায়ণের কাজ শেষ হয়েছে। আগামী ১৮ সেপ্টেম্বর দুপুর ৩টা ১৫ মিনিটে বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল আইতে এটি প্রচার হবে।

 

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ১০৯ বার




Archives